Home » Breaking News » ছবিতে রোহিঙ্গাদের উপর সেনাবাহিনীর বর্বরতা

ছবিতে রোহিঙ্গাদের উপর সেনাবাহিনীর বর্বরতা

হাসান হাফিজ, আরাকান টিভি:

গত বছরের আগস্টের ২৫ তারিখ মধ্যরাতে বার্মিজ সেনাবাহিনী ঘুমন্ত রোহিঙ্গাদের উপর ঝাঁপিয়ে পড়ে।  রাতের আঁধারে লন্ডভন্ড করে দেয় উত্তর আরাকানের শত শত রোহিঙ্গা গ্রাম। গণহত্যা ও গণধর্ষণে মেতে ওঠে বার্মিজ হায়েনারা।  নিরীহ মা-বোনদের ইজ্জত আব্রু রক্ষার্তে রোহিঙ্গা বিদ্রোহীরা পাল্টা আক্রমণ করে। এতে ক্ষোভ বেড়ে যায় সেনাবাহিনীর । নীরিহ রোহিঙ্গাদের বসতবাড়িতে অগ্নি সংযোগ, হ্যালিকপ্টার থেকে গোলা-বারুদ নিক্ষেপ, মর্টার হামলা, গণ-গ্রেফতার, গুপ্তহত্যা ও রোহিঙ্গা নারীদের ইজ্জত আব্রু হননের নেশায় মত্ত হয়ে ওঠে সৈন্যরা। গ্রামের পর গ্রাম জ্বালিয়ে দেয়। মসজিদ, মক্তব, মাদ্রাসা কোনটিই বাদ দেয়নি। প্রাণ বাঁচাতে লাখ লাখ রোহিঙ্গা বাংলাদেশে পাড়ি জমায়।

সেনাবাহিনীর সেই বর্বরতার চিহ্ন বয়ে বেড়াচ্ছে শিশু-বৃদ্ধ সকলে। তারই কিছু লোমহর্ষক চিত্র তোলে এনেছে যুক্তরাজ্যের সংবাদ মাধ্যম দ্যা সান

৬ বছরের শিশু মো: হারুন ও তার চার বছর বয়সী ছোট ভাই মো: আকতার। সেনাবাহিনীর দেয়া আগুনে ঝলসে গেছে তাদের শরীরের বেশ কিছু অংশ । 

১৫ বছরের কিশোরী শফিকা বেগমদের বাড়িতে যখন সৈন্যরা আগুন দেয়, তখন তার শরীরের গুরুত্বপূর্ণ অঙ্গ পুড়ে যায় । 

১৩ বছর বয়সী আকলিমা বিবি নিজ চোখে দেখেছেন সৈন্যরা তার বাবা ও বড় বোনকে গুলি করে হত্যা করতে । এখনো সে ভয়ংকর স্মৃতি মনে পড়লে সে আঁত কে ওঠে । 

শিশু আজিদা বিবি (১০) তার পরিবারের নিহতদের স্মৃতিচিহ্নের ছবি দেখাচ্ছেন। সৈন্যরা গুলি করে হত্যা করেছে বলে দাবি করে সে। অবশ্য নিকট আত্মিয়ের মোবাইলের ক্যামেরায় ধারণ করা ছবি এটি। 

এ হল রশিদা বেগম (২৩)। সৈন্যদের দ্বারা ধর্ষণের শিকার নারীদের একজ তিনি। তার গলায় কাটা চিহ্ন রয়েছে ।

রশিদা এবং তার স্বামী মোহাম্মদ হোসাইন (২৫) ।

নুর কলিমা নামের ১০ বছরের  এ শিশু তার মাকে ধর্ষণ করতে দেখেছে । গুলি করে তার বাবাকে হত্যার দৃশ্য দেখে সে অজ্ঞান হয়ে যায়। 

১৫ বছরের কিশোরী মিনুয়ারা ও তার চাচি জুলেখা বেগম (৫৫) । এই কিশোরী সেনাদের হাতে তার সম্ভ্রব হারান। এবং তার মা ও দুই বোনকে আগুনে পুড়ে যেতে দেখেছেন।  

জুলেখা বেগমের ১ ভাইঝি, ২ ভাগ্নে এবং একটি ২ বছরের নাতনিকে হত্যা করেছে সেনারা। 

সৈন্যরা পেটে লাথি মারার কারনে গর্ভবতি সেনোয়ারার (৩৫) গর্ভপাত হয়। ধর্ষণের শিকারও হন এ নারী । 

২১ বছর বয়সী সুরা খাতুকে গণধর্ষণ করে সৈন্যরা । তার এক বছর বয়সী বাচ্চা বাংলাদেশ পালানোর সময় পথে মারা যায়। 

facebook comments

আরো দেখুন

রোহিঙ্গাদেরকে বাংলাদেশে মগজ ধোলাই করা হচ্ছে’

  অনলাইন ডেস্ক, আরাকান টিভিঃ বাংলাদেশে শরণার্থী হিসেবে অবস্থানরত রোহিঙ্গা জনগোষ্ঠীকে বাংলাদেশ সরকারের পক্ষ থেকে …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *